থালাপাতি বিজয়ের বিস্ট মুভি রিভিউ

beast movie review in bangla - থালাপাতি বিজয়ের বিস্ট মুভি রিভিউ

BEAST Movie Review in Bangla

পরিচালকঃ নেলসন দিলীপকুমার
অভিনয়েঃ বিজয়, পুজা হেগডে, সেলভারাঘবান, ইয়োগী বাবু,রেডিন কিংসলে, ভিটিভি গনেশ, সাজি চেন, ফারুকি, আজিত ভিকাল।
{tocify} $title={Table of Contents}
সময়ঃ ২ ঘন্টা ৩৮ মিনিট
প্লটঃ প্রতিটি নিস্পাপ প্রাণই মুল্যবান। রাজনীতির কূটচালে কোন নিরীহ মানুষ আক্রান্ত হবে না এটাই “বাংলাদেশী” ছদ্মবেশে থাকা র এজেন্ট ভীরা রাঘবান এর মিশন।
রাষ্ট্র এর কাজ তাদের সাধারণ মানুষ এর সুরক্ষা দেয়া। সেখানে কোল্যাটেরাল ড্যামেজ এর নামে রাজানীতির মারপ্যাঁচে যখন সাধারণ নাগরিক আক্রান্ত হয় তখন একজন সৈনিক কি করবে সেটাই এ ছবির থিম। যে বা যারা বিজয় এর সাম্প্রতিক ইন্টারভিঊ দেখেছেন তারা এ ছবির প্লট রিলেট করতে পারবেন। বিজয় ও নেলসন জুটি বেশ কঠিন রাজনৈতিক বক্তব্যে, সুপরিকল্পিত একশন, স্ল্যাপস্টিক ও সিচুয়েশনাল কমেডি এর মাধ্যমে ফুল বিনোদনের গ্যারান্টিসহ এই ছবিতে তুলে এনেছেন।
আলতাফ চরিত্রে সেলভারাঘবান ছিলেন অসাধারণ। ইয়োগী বাবু,রেডিন কিংসলে, ভিটিভি গনেশ ছবির কমিক রিলিফ হিসেবে সংগত দিয়ে গেছেন যথাযথ। খল চরিত্রে আজিত ভিকাল ছিলেন নেলসনিয় প্রোটাগনিস্ট এর আদর্শ উপস্থাপন। অন্যান্য দক্ষিনী ছবির মত পূজা শুধুই আই ক্যান্ডি হয়ে থাকেননি, অভিনয়ের পাশাপাশি তার স্ক্রিন উপস্থিতিও বড়পর্দায় উপভোগ্য। 
ছোট একটি চরিত্রে অপর্ণা দাস ছিলেন চমৎকার। আর যারা ডক্টর দেখেছেন তাদের জন্যও রয়েছে ইস্টার এগ। ছোট ছোট অনেকগুলো জুটির একটাই উদ্দেশ্য ছিল আর তা হল বিজয়কে বিজয়ী করা। লো কি ডায়লগ ডেলিভারি, বরফ শীতল একশন, ঋজু কমিক টাইমিং এর সাথে হালকা রোমান্স, সব কিছু মিলিয়েই বিজয় তার ভক্তদের হতাশ করেননি।
সঙ্গীতে অনিরুধ একটাই প্রশ্ন তুলেছেন, আর সেটা হলো ,what will be his new high? মনোজ পরমহংস ক্যামেরায় নেলসনের ওয়াইড এঙ্গেল স্পেসকে যথাযথ ব্যবহার করেছেন। আর নির্মল এর সম্পাদনায় পুরো ছবি একবারের জন্যও ঝুলে পড়ে নি। অ্যাকশন সিকোয়েন্সগুলো বেশ সুপরিকল্পিত ছিল আর তার সাথে যথাযথ ছিলো ভিএফএক্স। 
সবশেষে এটাই বলা যায়, নতুন বছরে বিজয় তার দর্শকদের জন্য ভালোই উপহার দিয়েছেন যাতে এই ছুটি তাদের কষ্টের পয়সা উসুল হয়।
রেটিংঃ ৩.৫/৫, ওভার দ্যা টপ একশন সিকোয়েন্স না হলে অনায়াসে ৪ দেয়া যেত। আর অপ্রয়োজনীয় গান বা দৃশ্য না থাকায় ৩ এর কম পাবার সুযোগ রইলো না।
বিঃদ্রঃ বিজয়ের মুখে জয় বাংলা, বাংলাদেশী দর্শকদের জন্য আলাদা ফ্যানবয় মোমেন্ট দেবে। তাই ৩.৫।
বিজয়ের বিস্ট মুভি রিভিউ
(image credit: Sun Pictures)

প্রথমেই বলি, বিজয়ের অনেক নাম শুনেছি। দক্ষিন ভারতে তার ক্রেস সবচেয়ে বেশি। তার মার্শাল সিনেমা দেখলাম কিছুদিন হল মাত্র। ভালো লেগেছে।
এখন আসি তার Beast – এ। [NO SPOILER] 
গল্প তেমন কিছু না৷ মল হাইজ্যাক করা হয় আর ভাগ্যক্রমে একজন “র” এজেন্ট সেই মলে উপস্থিত থাকেন। একটু পরপর তিনি উঠে গিয়ে দু’চারজন’কে মেরে ফেলেন। আবার ভীরের সাথে মিশে যান। দ্বিতীয়ার্দ্ধে সেই এজেন্টের ব্যাকস্টোরি দেখানো হয়। 
প্রথমত, মানি হাইস্ট টাইপ হাইজ্যাক। মানে লম্বা সময়ে চলে এই নাটক। আর বিজয় হচ্ছে মানি হাইস্টের ওই টাকলা (নাম মনে নেই)। যে সবাইকে মারে কিন্তু তাকে কেউ কিছু করতে পারে না। 
আচ্ছা, একটা শপিং মল৷ সিসি ক্যামেরা তো থাকবে নাকি…? হাইজ্যাকার’রা সেই সিসিটিভি রুম দখল করবে, রাইট..? তাহলে এই যে বিজয় বারবার বসা থেকে উঠে গিয়ে হাইজ্যাকারদের মারছে এটা তাদের চোখে পড়ছে না কেন? আর ফিল্মের গল্প খুবই সহজ আর জগাখিচুরি স্ক্রীনপ্লে। মানে কজ বলবো!!!! 
VFX এর সীন আছে কিছু, অনন্ত জলিলের “দিন-দ্য ডে” – মনে আছে…(?) কার্টুন।  আমি দুষটামি করছি না। বিকেলের মধ্যে তো আপনারা হল-প্রিন্ট দেখবেন। দেখে নিয়েন। 
আর গল্পে নায়িকার কি দরকার ছিলো…(?) 
ট্রিপিক্যাল স্টোরি। হাইজ্যাক নিয়ে প্রথম হাফের গল্প কিন্তু কোনো টেনশনই বিল্ডাপ করতে পারেনি ফিল্ম৷ Everything is Under control অবস্থা। মানে এক্সাইটমেন্ট যে কাজ করবে সেটা হয় না। 

কালার গ্রেডিং নিয়ে বলি, বিজয় কুড়ার নিয়ে যায়, প্রাইমারি গ্রেডিংয়ে দেখানো হয় এই দৃশ্য। একদম সাদা-মাটা। বিজিএম আকর্ষণ করেনি আমাকে। তবে হিন্দি ডাবিংয়ের মান ভালো। ওহ, কিন্তু কিছু সংলাপ খুব ল্যেইম। 
আর কি বলবো, মাথা-হ্যাং আমার। জঘন্ন এক্সপেরিয়েন্স হল। ওহ একশন সীন। কিছু ভালো ছিলো আর কিছু ওভার দ্য টপ। মান-সম্মত নয়। সবচে বাজে লেগেছে গল্প ও চিত্রনাট্য।
#পরিশেষেঃ- বিজয় ফ্যানরা দেখুন আর আফসোস করুন। বাকিরা এটাকে ইগ্নোর করতে পারেন। 
– ধন্যবাদ।  
বক্স-অফিসঃ ৪০০+ কোটি হতে পারে (ফ্যান্স ফ্যাক্ট)। 
গল্প ভালো হলে ফিল্মটা ভালো বিজনেস করতো। 
[নোটঃ- কোনো স্টারকে ছোট করে দেখবেন না। ফিল্ম বাজে হতেই পারে। কিন্তু বিজয় সাউথে সবচে পপুলার]

২৬ দিন শেষে Beast এর কালেকশন

———
🔸 তামিলনাড়ু গ্রোস ⇨ ১১৯ কোটি
🔸 ডমেস্টিক গ্রোস ⇨ ১৬২ কোটি
———-
ওভারসীসের রিপোর্ট আসেনি। মুভির ফাইনাল ওয়ার্ল্ডওয়াইড গ্রোস ২৩০ কোটির বেশি হবে।
SEMI HIT….!

BEAST সিনেমার ফাইনাল বক্স অফিস কালেকশন (কারেক্টেড)

——————————————————
• তামিলনাড়ু → ১১৯.৫০ কোটি।
• কর্ণাটক → ১৪.৫০ কোটি।
• তেলুগু স্টেটস → ১২.৯৫ কোটি।
• কেরালা → ১০.৮৫ কোটি।
• ভারতের অন্যত্র → ৫.০০ কোটি।
• ওভারসীস → ৬১.৩০ কোটি [$8.026 million]
🌍 ওয়ার্ল্ডওয়াইড গ্রোস → ২২৪.১ কোটি+
🌍 ওয়ার্ল্ডওয়াইড শেয়ার → ১১৬ কোটি+
🔰 VERDICT → SEMI HIT

Leave a Comment

Total Views: 438

Scroll to Top