ব্যাটওম্যান সিজন ১ এপিসোড ২ রিভিউ – rabbit hole episode review

Batwoman Season 1 Episode 2 Review

ব্যাটওম্যান সিজন ১ এপিসোড ২ রিভিউ

গত ৬ অক্টোবর এ অ্যারোভার্সের নতুন সিরিজ ব্যাটওম্যান এর প্রথম এপিসোড রিলিজ হয়েছে । এর পরে ১৩ অক্টোবর এর দ্বিতীয় এপিসোড প্রচারিত হয় । আপনি যদি ব্যাটওম্যান এর অরিজিন না যেনে থাকেন তাহলে ব্যাটওম্যান এর অরিজিন এই পোস্ট পড়ে নিন।

ব্যাটওম্যান সিজন ১ এপিসোড ২ রিভিউ

আপনি যদি ব্যাটওম্যান এর প্রথম এপিসোড এর রিভিউ না পড়ে থাকেন তাহলে Batwoman Season 1 Episode 1 Review – ব্যাটওম্যান সিজন ১ এপিসোড ১ রিভিউ পড়ে নিন। তা না হলে এই টিভি শো এর গল্পটি বুঝতে পারবেন না ।

∆ ব্যাটওম্যান ∆ হল ব্যাটম্যান এর কাজিন কেট কেন্স । যার ছোট বেলায় মা আর বোন রোড এক্সিডেন্ট এ মারা যায়। এর পরে সে ওয়েন্স ম্যানারে এ ব্রুস ওয়েন তথা ∆ ব্যাটম্যান ∆ এর কাছে বড় হয়।

পরে ব্যাটম্যান তথা ব্রুস ওয়েন ∆ গোথাম শহর থেকে গায়েব হয়ে গেলে সে অন্যায়ের বিরুদ্ধ্যে লড়াই করতে গিয়ে ∆ ব্যাটম্যান এবং ব্রুস ওয়েনের আসল পরিচয় জানতে পারে এবং ব্যাটম্যান এর স্যুট নিয়ে এর কিছুটা মোডিফাই করে নিজের জন্য ∆ সুপারহিরো ∆ স্যুট বানায়। নেমে পড়ে গোথাম শহরের সন্ত্রাসী দমনের লক্ষে।

আর এই ভাবে শুরু হয় কেট কেন্সের ব্যাটওম্যান যাত্রা ।

এবার পড়ে নিন সিজন ১ এর এপিসোড ২ রিভিউ। # স্পইলার এলার্ট # ।

ব্যাটওম্যান সিজন ১ এপিসোড ২ রিভিউ

∑‡ স্পইলার এলার্ট †⁺

Batwoman Episode 2 Breakdown Review

★ আগের এপিসোড এর Batwoman Season 1 Episode 1 Breakdown Review পড়ে নিন

★ দ্বিতীয় এপিসোড এর ব্যাপ্তিকাল ছিল ৪২ মিনিট । এপিসোড এর নাম The Rabbit Hole। এটি গত ১৩ অক্টোবর রিলিজ হয়।

★ এপিসোড এর শুরুতেই আগের এপিসোড এর কিছু দৃশ্য দেখানো হয় । এর পরেই কেট ওরফে ব্যাটওম্যান এর ছোটবেলার রোড এক্সিডেন্ট এর দৃশ্য দেখানো হয় কিভাবে তার মা আর বোন মারা যায় । যদিও কেট এর মতে তার মায়ের লাশ পাওয়া গেলেও তার বোনের লাশ পাওয়া যায়নি । তারমতে যতক্ষণ কোন লাশ পাওয়া যাচ্ছে না ততক্ষণ তার বোনের জীবিত থাকার আশা করা যাচ্ছে । কেট তার বাবা এবং পুরো শহর তার বোনের খোজ করলেও কোন খবর হয় না। দিন, সপ্তাহ এবং মাস পেরিতে গেলেও তার বোনের লাশ এর খবর পাওয়া যায় না । যার ফলে অন্য ব্যক্তিরা তার জীবিত কিংবা মরা লাশ এর আশা করে তাকে খুঁজলে ও, এতো সময় অতিবাহিত হয়ে যাওয়ার ফলে তারা আশা ছেড়ে দেয় ।

★ পরের দৃশ্যে দেখা যায় কেটের বাবা “ক্রো” নামের সন্ত্রাসী দলের সদস্যদের গ্রেফতার করতে অনুসন্ধান করলেও ব্যার্থ হয় । যদিও ব্যাটওম্যান সন্ত্রাসী দলের কিছু সদস্যদের ধরতে সক্ষম হয় । তাদের কে ধোরে জিজ্ঞাসাবাদ করবে যে তাদের লিডার অ্যালিস এই কি তার হারিয়ে যাওয়া বোন বেথ কিনা!? কারন তার বাবা এটা কখনোইই বিশ্বাস করবে না যে তার মেয়ে একজন সন্ত্রাসী দলের নেতা।

★ এর পরে ব্যাটওম্যান ব্যাটকেভ এ ফিরে যায়। যেখানে লুক এর সাথে মনোমালিন্য হয়। বিশেষ করে ব্যাটম্যান এর মত পোশাক পড়ে সে গোথাম শহরে বের হতে পারবে না কিংবা ব্যাটম্যান এর নাম করে রাস্তায় যেন সে না বের হয় । যদিও কেট এর জবাবে কিছুই বলে না । শুধুমাত্র সে বলে যে তাকে অবশ্যই বেথ বা তার বোনকে খুজে বের করতে হবে। এর পরের দিন রেডিও তে শুনা যায় রাতে মুখোশ পড়ে কে বের হয়? ব্যাটম্যান নাকি অন্যকেউ তার ছদ্দবেশ ধোরেছে ।

★ পরের দৃশ্যে দেখা যায় কেট এর পরিবার কে যেখানে তারা নাস্তা করছিল । কেট তার সন্দেহ এর ব্যাপারে তার বাবাকে বলে । যদিও তার বাবা এই ব্যাপারটিকে গুরুত্ব না দিয়ে এড়িয়ে যায়। কেট বলে অ্যালিস হল বেথ সে এটা প্রমাণ করেই ছাড়বে এই বলে কেট নাস্তা না করে চলে যায়।

★ এর পরে অ্যালিস কে দেখা যায় একটি বাড়িতে তার দলের সদস্যদের কে সাথে নিয়ে সে বাড়ির মালিক কে দড়ি দিয়ে বেধে রেখেছে । সেখানে অ্যালিস তার বয়ফ্রেন্ডের সাথে মনোমালিন্য হয় তার ছুড়ি না খুজে পাওয়ায় । তখন সে বলে যে সে তার বাবাকে হারাতে চায়। সেই সাথে তার ওয়ান্ডারল্যান্ড গ্যাং এর সদস্যদেরকে বলে তাড়াতাড়ি যেন তার ছুড়িটি খুজে এনে দেয় ।

★ পরের দৃশ্যে কেট কে ব্যাট ক্যাভে দেখা যায়, তার হাতে ছোট বেলার ছবি হাতে রয়েছে । এর পরে সে অতীত কল্পনায় চলে যায় । সেখানে দেখা যায় যে রাতে ঘুমানের সময় এক্সিডেন্ট এর স্বপ্ন দেখে । পরে কেট এর ঘুম ভেংগে যায় । কেট বলে তাদের কে খুজতে হবে বাবা । তার বাবা তাকে প্রমিজ করে যে সে তার বোনকে খুজে আনবে । পরে লুক ফক্স আসলে সে বলে তার কাছে ম্যাশিন আছে ডি এন এ ম্যাচিং এর জন্য । যে জন্য অ্যালিস এর রক্ত লাগবে ।

★ এছাড়াও লুক বলে ব্যাটম্যান এর স্যূট পড়ে বাইরে বের হওয়ার বিষয়ে সিরিয়াসলি ভাবতে হবে। বিশেষ করে যখন গোথামের লোকজন তাকে ব্যাটম্যান হিসেবে দেখছে, মানুষজন নতুন আশা পাচ্ছে তাকে দেখে । সে বলে তার এই স্যুটটি লাগবেই । পরবর্তিতে কেট তার বাবার অফিসে যায়, যেখানে তার পুরনো গার্লফ্রেন্ড সোফির সাথে আলাপ-আলোচনা করতে ।

★ কেট তার গার্লফ্রেন্ড এর কাছে সাহায্য চায় তার বোনের বিষয়ে সাহায্য চাইতে । কিন্তু সে মানা করে যে যদি তার বাবা জানতে পারে তাহলে সে বিপদে পরতে পারে। সেই সময়ই তাদের উপর হামলা করে ওয়ান্ডারল্যান্ড গ্যাং এর সদস্যরা । সেই হামলায় কেট তার হাতে থাকা তার বোনের ছুড়ি হারিয়ে ফেলে। এর পরে তারা চলে গেলে, কেট আর সোফিকে তার বাবার অফিসে ডেকে নেয়। যেখানে তাদেরকে বকা ঝকি করে এই গ্যাং এর সদস্যদের কে তাদের অফিসে নিয়ে আসার জন্য । যদিও এখানে সোফি কেটের হয়ে কথা বলে ।

★ এরপরেই দেখা যায় সে তার ডক্টর বন্ধুর ইলিগ্যাল ক্লিনিকে গিয়েছে । যেখানে ওয়ান্ডারল্যান্ড গ্যাং এর সদস্য আহত অবস্থায় ছিল । সেই সদস্যের মাধ্যমে কেট অ্যালিস কে একটি মেসেজ পাঠায় । এর মাধ্যমে প্রমাণিত হবে যে যদি অ্যালিসই বেথ তাহলে সে এই মেসেজের মানে বুঝবে ।

★ পরের দৃশ্যে কেটের বাবার অফিসে নিয়ে যাওয়া হয়। যেখানে তার বাবা একটি টিম তৈরি করে । কেটের বাবা অ্যালিস এর অবস্থান জেনে গেছে এই বলে সে তাকে ধরতে যায় । সোফি কেট কে এই সংবাদ টি জানায়। যে যায়গায় অ্যালিস অবস্থান করছিল সেটি তাদের পুরনো বাড়ি ছিল । সেখানে বাড়ির মালিকদের মেরে ফেলে চলে যায় । তার বাবা কাউকে খুজে পায়না।

★ এর পরের দৃশ্যে দেখা যায় কেট একটি নির্জন জায়গায় যায় । যেখানে আগে মেলা বসত এবং ওরা দুজনে নিয়মিত সেই মেলায় যেত তাদের পছন্দের খাবার খেতে । এটাই ছিল সেই মেসেজ। তখন কেট পুরনো সৃতি মনে হয়। যেখানে কেট বলে যে সে তার বোনকে ছেড়ে দিয়েছিল । তাকে সে বাচাতে পারেনি। তার বোনের মারা যাওয়ার কারন হিসেবে নিজেকে দায়ী করে ।

★ এর পরেই দেখা যায় অ্যালিস কে যে একটি দোলনায় ঝুলছিল । কেট তার কাছে যায় এবং জিজ্ঞাসা করে যে সে তার বোন কি না!? অ্যালিস এই প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে, কিন্তু কেট বলে যে সে তার ছুড়িটি ডি এন এ টেস্ট করাতে চাচ্ছিল । অ্যালিস তখন বুঝতে পারে যে তার বোন কেট হল সেই ব্যাটওম্যান যে এর আগে তাকে আক্রমণ করেছিল । কেট বলে যে সে চায় ডি এন এ টেস্ট করাতে কিন্তু অ্যালিস বলে যে সে আগেই তার বেথ পরিচয় প্রমাণ করেছে । এই জায়গায় এসে, তার পাঠানো মেসেজ বুঝেছে ।

★ এর পরের দৃশ্যে দেখা যায় সোফি তার বস কেটের বাবাকে বলে দেয় কেট আর বেথ কোথায় অবস্থান করছে । এর পরের দৃশ্যে বেথ আর কেট এর মধ্যে তার মৃত্য এর বিষয় নিয়ে কথা কাটাকাটি হয় । কেট বলে যে তারা তার লাশের কংকাল উদ্ধার করেছিল । সে কিভাবে ওই দুর্ঘটনা থেকে বেচে গেল । তখন বেথ কিভাবে বাচল তার বর্ণনা দেয় । তখন কেট এর মোবাইলে মেসেজ আসে । পরবর্তিতে বেথ বলে আমি এখানে এসেছি তোমাকে একটি প্রশ্ন করার জন্য। ” আমি হারিয়ে যাওয়ার পরে তুমি কবে প্রথমবার শান্তিতে ঘুমিয়েছিলে? “।

★ কেট উত্তর দেয় যে সে এখনো ঘুমাতে পারেনা । সে এখনো ওই দুর্ঘটনা ভুলতে পারেনি। কারন তার মনে হয়েছিল তার বোনের সাথে তার ও থাকা উচিত ছিল। পরে বেথ তার চাকু দিয়ে তার হাত কেটে বলে এইটা দিয়ে ডিএনএ টেস্ট করানোর জন্য। ঠিক সেই মুহুর্তে তার বাবা তার নিজস্ব ফোর্স নিয়ে এসে বেথ কে গ্রেফতার করে । সেখানে কেট তার বাবার সাথে এবং এক্সগার্লফ্রেন্ড সোফির সাথে ঝগড়া করে ।

★ পরের দৃশ্যে কেট এর বন্ধুর ক্লিনিকে নিয়ে যাওয়া হয় । সেখানে তার বন্ধুর উপর হামলা করে অ্যালিস ওরফে বেথ এর বয়ফ্রেন্ড । পরে কেট বা ব্যাটওম্যান এসে তাকে বাচায় । সেই মুহুর্তে টিভিতে দেখা যায় যে বেথ কে যে গাড়িতে করে আর্খাম এসাইলাম এ নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল সেই গাড়িটি বিস্ফোটিত হয় । কেট দ্রুত সেখানে গিয়ে তার বোনকে ডুবে মরার হাত থেকে বাঁচায়। বেথ পরবর্তীকালে কেট কে একটি চিঠি এবং একটি উপহার পাঠায় । এভাবেই শেষ হয় ব্যাটওম্যান সিজন ১ এর এপিসোড ২ ।

ব্যাটওম্যান সিজন ১ ট্রেইলার ব্রেকডাওন রিভিউ

ব্যাটওম্যান সিজন ১ এর ট্রেইলার ব্রেকডাওন রিভিউ পড়ুন এই লিংক থেকে

Leave a Comment

Total Views: 518

Scroll to Top